close

রাজনীতি

রাজনীতি

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন আরও যাচাইয়ের সিদ্ধান্ত

Untitled-3 copy

জাতীয় সংসদে উত্থাপিত ‘ডিজিটাল নিরাপত্তা বিল-২০১৮’ আরও যাচাই-বাছাইয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছে সংসদীয় কমিটি।

বুধবার জাতীয় সংসদ ভবনে অনুষ্ঠিত ডাক টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির ২৪তম বৈঠকের দ্বিতীয় মুলতবি বৈঠকে সিদ্ধান্ত হয়।

কমিটির সভাপতি ইমরান আহমদের সভাপতিত্বে সদস্য হোসনে আরা লুৎফা ডালিয়া এবং বিশেষ আমন্ত্রণে আইন, বিচার ও সংসদ বিষয়ক মন্ত্রী আনিসুল হক, ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার বৈঠকে অংশগ্রহণ করেন।

এছাড়া কমিটির আমন্ত্রণে অ্যাসোসিয়েশন অব টেলিভিশন চ্যানেল ওনার্স এর ভাইস প্রেসিডেন্ট ও ৭১ টিভির ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোজাম্মেল হক বাবু, বিএফইউজের সভাপতি মঞ্জুরুল আহসান বুলবুল এবং দি ডেইলি স্টারের সম্পাদক মাহ্ফুজ আনাম বৈঠকে যোগদান করেন।

বৈঠকে বিস্তারিত আলোচনা করে বিলটিকে অধিকতর যুগোপযোগী করার লক্ষ্যে আরও বৈঠক করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়।

বৈঠকে সংসদীয় কমিটি জানায়, এর আগে সাংবাদিকদের বৈঠকের প্রেক্ষিতে তারা ১২টি সংশোধন এনেছে। সেইসব সংশোধনী সাংবাদিকদের কাছে দেয়া হয়। যাচাই-বাছাই করে চলতি মাসের ১৬ তারিখে আবার বৈঠক করবে কমিটি।

সংসদে উত্থাপিত বিতর্কিত এই আইনের ৩২ ধারা নিয়ে আলোচনা-সমালোচনা চলছে। সাংবাদিক বা যে কেউ ইচ্ছাকৃতভাবে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য কাঠামোতে বারবার অনুপ্রবেশ করলে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড ও পাঁচ কোটি টাকা অর্থদন্ডের বিধান রাখা হয়েছে।

আপত্তির মুখে অ্যাসোসিয়েশন অব টেলিভিশন চ্যানেল ওনার্স, বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়ন (বিএফইউজে) ও সম্পাদক পরিষদের সঙ্গে বৈঠক করে কমিটি। বৈঠকে সম্পাদক পরিষদ একটি লিখিত প্রস্তাব দেয়।

 

 

আরও পড়ুন…

বাংলাদেশ বার কাউন্সিলের ভাইস চেয়ারম্যান হলেন জ্যেষ্ঠ আইনজীবী ইউসুফ হোসেন হুমায়ুন। শনিবার কাউন্সিলের নবনির্বাচিত কমিটির প্রথম সভা তিনি চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন।

আওয়ামী লীগের আইনবিষয়ক সম্পাদক শ ম রেজাউল করিম এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

সারা দেশের ৫০ হাজার আইনজীবীর সর্বোচ্চ এই নিয়ন্ত্রক সংস্থার ভাইস চেয়ারম্যান হিসেবে গত কমিটিতে দায়িত্ব পালন করছিলেন আরেক জ্যেষ্ঠ আইনজীবী আবদুল বাসেত মজুমদার।

গত ১৪ মে সারাদেশে বার কাউন্সিল নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এতে নির্বাচিত ১৪ জনের মধ্যে ১২ জনই জয় পেয়েছেন সরকার সমর্থক সাদা প্যানেল থেকে। আর বিএনপি সমর্থিতরা পেয়েছেন অন্য দুটি পদ।

তিন বছর পরপর এ প্রতিষ্ঠানটিতে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। বার কাউন্সিলের বিধি অনুযায়ী এটি পরিচালিত হয় ১৫ সদস্যের কমিটি দিয়ে। পদাধিকারবলে চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন অ্যাটর্নি জেনারেল। এই পদটি ব্যতীত নির্বাচিত ১৪ স

read more